Breaking News

করোনা আক্রান্ত বিশ্বে আজ মহান মে দিবস

কল্যাণ দত্ত, নিউজ অনলাইন: আন্তর্জাতিক শ্রমিক আন্দোলনের স্মরণে ও শ্রমিক অধিকার নিশ্চিত করার প্রত্যয় নিয়ে প্রতি বছর  মে মাসের প্রথম দিন পালিত হয় মে দিবস। তবে এই দিবসটির আসল নাম কিন্তু আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস। 
অনেক অনেক বছর আগেকার কথা, তখন সালটা ১৮৮৬।  
আমেরিকার শিকাগো শহরে হে মার্কেটে নিজেদের দাবীদাবা নিয়ে আনলেন করতে জমায়েত হয়েছিল শ্রমিকেরা। আর সেখানে উপস্থিত ছিল পুলিশও। হঠাৎ পুলিশের যাকে কেউ একজন বোমা নিক্ষেপ করে , আর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে শুরু হয় শ্রমিক পুলিশ সংঘর্ষ। নিহিত হয় কয়েক জন শ্রমিক ও পুলিশ।  
পরবর্তীতে ১৮৮৯ সালে প্যারিসে দ্বিতীয় আন্তর্জাতিকের প্রথম কংগ্রেসে রেমন্ড ল্যাভিনে সেই ঘটনার স্মরণে প্রতি বছর 'হে মার্কেট' প্রতিবাদে বার্ষিকী আন্তর্জাতিকভাবে পালন করার প্রস্তাব উত্থাপন করেন।  

১৮৯১ সালে  এই প্রস্তাব গ্রহণ করা হয় 
প্রতিবছর ১লা মে তারিখে বিশ্বব্যাপী উদযাপিত হয় মে দিবস। 
বিশ্বের প্রায় ৮০টি দেশে ১লা মে জাতীয় ছুটির দিন হিসবে নির্ধারিত আছে।  
আবার কিছু কেমন দেশে মে দিবস বেসরকারি ভাবেও পালিত হয়।  
শ্রমজীবী এবং মেহনতী  মানুষের দিন এটা। 
মে দিবস হাজার হাজার শ্রমিকের পথ চলা মিছিলের কথা। 
মে দিবস দুনিয়ায় সব শ্রমিকদের এক হবার দিন। 
কোভিট ১৯ মহামারীর মোহে এলো এই আন্তর্জাতিক মে দিবস। 
এক দিকে ভাইরাসের আক্রমণে জীবন হারানোর আশংকা ,অন্যদিকে উপার্জনহীন অবস্থায় অনাহার - অর্ধাহারে দিন যাপনের দুঃখ কষ্ঠ। 
উভয় দিক মিলিয়ে শ্রমজীবী মানুষ আজ এক গুরুতর সংকটের মুখোমুখি। 
সারা বিশ্বের শ্রমজীবী মানুষদের প্রতি রইলো মে দিবসের শুভেচ্ছা ও সংহতি।

No comments