Breaking News

পাটনা থেকে বালুরঘাটে আসাকে কেন্দ্র করে স্থানীয়দের মধ্যে বিক্ষোভ

শিব শঙ্কর চ্যাটার্জি, নিউজ অনলাইন: বালুরঘাট ; লকডাউন চলাকালীন পাটনা থেকে মেয়ে জামাই  ও শালিকাকে নিয়ে পাড়ায় আসায় তাদের কোয়ারাইন্টাইন নয় আইশোলেশন সেন্টারে পাঠাবার দাবিকে কেন্দ্র করে স্থানিও বাসিন্দাদের বিক্ষোভ।ঘটনাটি ঘটেছে আজ বিকেলে বালুরঘাট শহরের আর্য্যসমিতি সংঘ এলাকার বংগবাসি পাড়ায়। এই নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা দেখা দিলে খবর পেয়ে বালুরঘাট থানা থেকে প্রথমে কয়েকজন পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়।কিন্তু  স্থানিওদের  সাথে বার বার কথা বলেও  পরিস্থিতি সামাল দিতে না পারায় পরে ফের থানা থেকে  বিশাল পুলিশ বাহিনী গিয়ে লাঠি হাতে বিক্ষোভকারিদের দিকে তেড়ে গেলে বিক্ষোভকারিরা সেখান থেকে সরে যায়। এরপরেই পুলিশ ওই তিনজনকে ১৪ দিনের হোম  কোয়ারাইন্টাইনে থাকার নির্দেশ দিয়ে তাদের বাড়িতে ঢুকিয়ে দিয়ে যায়।পুলিশ চলে গেলেও এই নিয়ে এলাকায় চাপা উত্তেজনা বজায় রয়েছে।

স্থানিও সুত্রে জানা গেছে  লকডাউন চলাকালীন গতকাল রাত্রে  এলাকার জৈনিক এক বাসিন্দার মেয়ে বিহারের পাটনা  থেকে জামাই ও তার বোনকে নিয়ে বাড়িতে  বৃদ্ধ বাবা মা কে দেখতে আসে। এদিকে গতকাল রাত্রে লকডাউনের  নির্দেশ মত কোয়ারাইন্টাইনে না থেকে সোজা বাড়িতে ওঠাকে কেন্দ্র করে স্থানিও বাসিন্দাদের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দেয়। যদিও বিষয়টি আন্দাজ করে পাটনা  থেকে আসা ওই তিনজন আজ সকালে বালুরঘাট হাসপাতালে গিয়ে নিজেদের চেকাপ করিয়ে  হাসপাতালের পরামর্শে ফের বাড়িতে কোয়ারাইন্টাইনে থাকার জন্য ফিরে আসার সময় স্থানিও বাসিন্দাদের বিক্ষোভের মুখে তাদের পড়তে হয়। স্থানিও  বিক্ষোভরত বাসিন্দাদের দাবি হোম  কোয়ারাইন্টানে নয়  তাদের সরাসরি আইসোলেশন সেন্টারে থাকতে হবে। পাড়ার ভেতর তাদের থাকতে দেওয়া হবে না। 

এরপরেই খবর পেয়ে পরিস্থিতি সামাল দিতে ঘটনাস্থলে বালুরঘাট থানা থেকে পুলিশ আসে।

No comments