পল মৈত্র, দক্ষিন দিনাজপুরঃ ৩২ হাজার ভোটে জয়ী হয়েছেন বালুরঘাট ৬ নং লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী ডঃ সুকান্ত মজুমদার। খুব অদ্ভুত ভাবেই এই জয় দক্ষিন দিনাজপুর জেলা বিজেপি নেতৃত্বদের অক্সিজেন জোগান দিল তা নিঃসঙ্কোচে বলা যায়, কারন তথাকথিত ভাবে দক্ষিন দিনাজপুর জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের হেভিওয়েট ও দাপুটে নেতা তথা জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি বিপ্লব মিত্রের গড়। সেই জোড়া ফুলের গড়ে পদ্ম ফুলের কাঁটায় বিদ্ধ শাসক দলের এই ফলাফল মেনে নিতে পারছেন না তৃণমূল কংগ্রেসের অনুগামীরা। প্রসঙ্গত এই জেলায় বরাবরই বিজেপি করতে গিয়ে কোন না কোন ভাবে আক্রান্ত বা বাধা পেয়েছেন জেলা বিজেপি নেতৃত্ব, সাংগঠনিক শক্তি না থাকা সত্বেও বিজেপি প্রার্থী ডঃ সুকান্ত মজুমদারের জয়ে জেলা বিজেপি নেতৃত্ব হাঁফ ছেড়ে বাঁচলেন তা বলাই বাহুল্য। তবে বালুরঘাট ৬ নং লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী অর্পিতা ঘোষ এই পরাজয় কে স্থানীয় নেতৃত্বের কারনে হয়েছে বলে মনে করছেন।
বিজেপি প্রার্থী সুকান্ত মজুমদারের কাছে পরাজিত হওয়াটাকে একজন দুঁদে নেত্রীর মতো নিলেন তৃণমূল প্রার্থী অর্পিতা ঘোষ । এই বিষয়ে তার প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে তিনি বলেন, হার জিত তো আছেই, ২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে আমি জিতেছিলাম, একজন হেরেছিল, এবার তারই ন্যায় প্রত্যাবর্তন হলো। দেশজুড়ে বিজেপির ব্যাপক উত্থানের বিষয়টি নিয়ে তিনি চিন্তিত। তিনি বলেন, দেশের জন্য বিজেপির এই উত্থান ভয়ঙ্কর হবে,আমার মনে হয় কোথাও যেন ভুল বুঝেছে মানুষ । যেমন হিটলার জার্মানি চালিয়েছেন তারই প্রতিফলন আগামীদিনে দেখা যাবে, যা দেশের জন্য খুবই বিপজ্জনক ।
বালুরঘাটে পঞ্চায়েত নির্বাচন ভালো হয়নি, কিন্তু গঙ্গারামপুরে প্রায় সব কটি পঞ্চায়েত আমাদের হয়েছে, তারপরও কেন হার তা নিয়ে একটি পর্যালোচনার দরকার আছে । তপনের 8 টি বালুরঘাটের অঞ্চল আছে, যেখানে আমাদের লোকসান হয়েছে । এছাড়া বালুরঘাট, গঙ্গারামপুর টাউন এলাকায় আমাদের লোকসান হয়েছে ।"রাজনৈতিক মহলের একাংশের মতে, দলের অন্তর্ঘাতের কারণেই হেরেছেন অর্পিতা । এনিয়ে অর্পিতা বলেন, "এখনই কিছু বলা সম্ভব নয় । নিজেদের বসতে হবে । ঠিক কী হয়েছে তা আমাদের দেখতে হবে । শুধুমাত্র হিন্দু ভোটের একটি চোরাস্রোত বলে উড়িয়ে দিলে ভুল হবে। অন্যদিকে, সদ্য জয়ী বিজেপি প্রার্থী ডঃ সুকান্ত মজুমদার বলেন, এই জয় দেশের জয়, রাষ্ট্রের জয় মানুষ দেশকে ভালোবেসে নরেন্দ্র মোদীর হাতকে শক্ত ও মজবুত করার জন্য আমাদের বিপুল ভোটে জয়ী করেছে, আগামী দিনে সকল কর্মযজ্ঞে সকলের পাশে থাকবো। বালুরঘাট লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপি বিপুল আসনে জয়ী হওয়ার পর থেকে সোশ্যাল মিডিয়া ও জেলা জুড়ে গেরুয়া আবিরের বৃষ্টি শুরু হয়েছে, দফায় দফায় বিজয় মিছিল, পাড়া শহর ও বিভিন্ন জায়গায় বাজী পটকা ফাটাচ্ছেন দলীয় কর্মী-সমর্থক থেকে শুরু করে আমজনতা। উল্লেখ্য, গত দুদিন আগেও যারা বিরোধী দল(প্রধানত শাসক দলে ছিলেন) করতেন তারাও রাতারাতি রঙ দল বদলে গেরুয়া আবিরের বৃষ্টিতে ভিজছেন, সবার মুখে একই ধ্বনি জয় শ্রী রাম, নরেন্দ্র মোদী জিন্দাবাদ। আর এই ধ্বনিতে কার্যত জেলার মাটি কেঁপে উঠছে তা বলাই বাহুল্য।

0 comments:

Post a Comment

হালিশহরের ভাগাড় থেকে উদ্ধার মৃতদেহ

নিজস্ব প্রতিনিধি: আজ হালিশহর এর 8 নম্বর ওয়ার্ড এর ভাগাড় থেকে উদ্ধার হল পচা-গলা মৃতদেহ। বীজপুর থানার পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্...

 
Top