Breaking News

বারাসাতে রক্ত সংকট মেটাতে এগিয়ে এল এক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা

সৌভিক সরকার, নিউজ অনলাইন: গ্রীষ্মকালে বরাবরই রক্ত সংকট হয় সর্বত্র, এবার অবস্থা আরো ভয়াবহ। সরকারী ও বেসরকারী স্তরে রক্তের আকাল।রক্তের গ্রহীতাদের চাহিদা আছে, নেই রক্তদাতা। যোগাযোগ পরিষেবা অচল লক ডাউনে। ইচ্ছে থাকলেও বহু রক্তদাতা বাড়ি ছেড়ে বেরোতে পারছেন না। এমন সময়ে উত্তর চব্বিশ পরগনার বারাসাতে রক্ত সংকট কাটাতে হাত বাড়িয়ে দিলেন একদল উপকারী মানুষ যাঁরা পালন করছেন প্রকৃত মানুষের ভূমিকা। আর তাঁদের সৌজন্যে সংকট কাটছে বেশ কিছু এমন মানুষের যাঁরা রক্ত পেয়ে জীবন খুঁজে পাচ্ছেন। 

উত্তরচব্বিশ পরগনা সহ  জেলাজুড়ে জীবনদায়ী  রক্তের জন্য কার্যত হাহাকার পড়েছে। থ্যালাসেমিয়া ও এমন কিছু দুরারোগ্য ব্যাধি রয়েছে যে রোগে রক্ত না পেলে মারা যাওয়ার আশংকা বহু রোগী। শল্য চিকিৎসা সহ অনেক ক্ষেত্রে রক্ত আবশ্যিক হলেও সংকট চরমে। এই ক্রান্তিকালে প্রচার সহ রক্তদানের মহৎ কার্যের সঙ্গে নিজেদের জড়িয়ে এগিয়ে এল এক স্বেচ্ছাসেবী  সংস্থা। বারাসাত জুড়ে স্বাস্থ্য নির্দেশিকা মেনে সংকটে থাকা রোগীদের পাশে দাঁড়াচ্ছেন উপকারী এই সংস্থার সমাজ বন্ধু মানুষেরা  যা সত্যি স্বতন্ত্র ভাবনার পথিকৃৎ.  

 প্রচারের আলো তাঁদের ওপরে পড়ে না।স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ""অন্য ভাবনা "র তাঁরা চান না  নিজেদের প্রচার। তাঁরা চান শুধু মানবিকতার  বার্তাই  প্রচারিত হোক যেন  রক্তের জন্য মানুষের পাশে এসে দাঁড়ায়।উল্লেখ্য,  বাlরাসাত জেলা হাসপাতালে ব্লাড ব্যাঙ্কে  যে সমস্ত রোগীর বাড়ির লোক আসছেন  ,তাঁদের মধ্যেই অনেকেই লক ডাউন চলায় বাড়ির লোক নিয়ে এসে দাতা  দিতে পারছেন না ,তাঁদের কে ডোনার বা রক্তদাতা দিয়ে সহযোগিতা র হাত বাড়িয়ে দিয়েছে বারাসাত এর এক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন "অন্য ভাবনা ""।  প্রতিদিন হাসপাতালে ব্লাড ব্যাঙ্ক এর সামনে গত কয়েকদিন ধরেই  ক্যাম্পেনিং করছেন, রক্তদাতার মাধ্যমে রক্তদানের কাজে ব্রতী তাঁরা।  ফলশ্রুতি, রক্তদাতা বা  ডোনারের অভাব এ রক্ত পাচ্ছিলেন  না ,তাঁদের সংকট কাটছে বিপর্যয়ের সময়। বারাসাত হাসপাতালে দূরদূরান্ত থেকে আসা থ্যালাসেমিয়া সহ বিভিন্ন রোগের সঙ্গে লড়তে থাকা রোগীর  পরিবারের সদস্যদের স্বস্তির ছাপ ধরা পড়ল আমাদের ক্যামেরায়।

No comments